প্রবাসী স্বামীর সঙ্গে মোবাইলে কথা বলতে বলতে গলায় ফাঁস দিল সুন্দরি স্ত্রী

জাতীয়

মোবাইলে প্রবাসী স্বামীর সঙ্গে কথা বলতে বলতে ফাঁস দিল স্ত্রী। বৃহস্পতিবার সকালে পুলিশ তার লা-শ উ-দ্ধার করে ময়নাতদ-ন্তের জন্য ম-র্গে পাঠিয়েছে। বুধবার রাতে মর্মা-ন্তিক এ ঘ-টনাটি ঘটেছে মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলার টেকেরহাট বন্দর আবাসিক এলাকায়।মৃ-ত গৃহবধূর নাম লাভলি বেগম। তার স্ব-জনদের দাবি, শ্ব-শুরবাড়ির লোকজন তাকে শারী-রিকভাবে নি-র্যাতন করে হ-ত্যা করেছে। পুলিশ ও স্থা-নীয় সূ-ত্রে জানা যায়, গোপালগ-ঞ্জের

মুকসুদপুর উপজেলার ছাগলছিড়া গ্রামের হাসু মোল্লার মেয়ে লাভলি বেগমের সঙ্গে প্রায় সাত বছর আগে রা-জৈর উপজেলার টেকেরহাট আবাসিক এলাকার মজিবর সরদারের সৌদি প্রবাসি ছেলে আজাদ সরদারের বিয়ে হয়।বিয়ের পর থেকে স্বামীর বাড়ির লোকজনের স-ঙ্গে পারি-বারিক কলহ চলে আসছিল লাভলির। এরই জেরেই বুধবার রাত সাড়ে ৯টার সময় লাভলি বেগম সৌ-দি প্র-বাসী স্বামী আজাদের স-ঙ্গে মো-বাইলে কথাকাটা-টির একপ-র্যায়ে ওড়না পেঁ-চিয়ে ফাঁ-স দিয়ে ঘরের আড়ার

স-ঙ্গে ঝু-লে আত্মহ-ত্যা করার চে-ষ্টা করে। পরে বাড়ির লোকজন টের পেয়ে গৃ-হবধূ লাভলী বেগমকে উ-দ্ধার করে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে রাত ১১টার দিকে সে মারা যায়।লাভলি বেগমের ভাই রাসেল মোল্লা বলেন, আমার বোনকে তার শ্ব-শুরবাড়ির লোকজন শারীরিকভাবে নি-র্যাতন করে হ-ত্যা করেছে। আমি এর সঠিক বিচার চাই।

লাভলির শ্ব-শুর মজিবর সরদার তাদের বি-রুদ্ধে হ-ত্যার অভিযোগ অ-স্বীকার করে জানান, সৌদি প্রবাসি আমার ছেলে আজাদের সঙ্গে মো-বাইলে কথা কাটাকাটির পর গলায় ওড়না পেঁচিয়ে ঘরের আড়ার সাথে ঝুলে আত্মহ-ত্যা করার চে-ষ্টার খবর পেয়ে আমি ব-উকে উ-দ্ধার করে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে

নেয়ার পথে সে মারা যায়।রাজৈর থানার ওসি শেখ সাদী জানান, এক গৃ-হবধূ-র মৃ-ত্যুর ঘটনায় থানায় একটি অপমৃ-ত্যুর মামলা হয়েছে। ময়নাতদ-ন্তের রি-পোর্ট পেলে মৃ-ত্যুর আসল রহস্য জানার পর পরবর্তী আইনি ব্য-বস্থা নেয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *