প্রাথমিক বিদ্যালয় খোলার বিষয়ে যা বললেন গণশিক্ষা সচিব

জাতীয়

করোনা পরিস্থিতিতে সারাদেশে এখনো প্রাথমিক বিদ্যালয় খোলার পরিবেশ সৃষ্টি হয়নি। তবে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে যে কোন সময় স্কুল খোলার পরিবেশ তৈরিতে পূর্ব প্রস্তুতি নিতেই স্কুলগুলোকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব আকরাম হোসেন। বুধবার (০৯ সেপ্টেম্বর) এ কথা জানান তিনি।মঙ্গলবার (০৮ সেপ্টেম্বর) করোনা পরিস্থিতিতে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় খোলার প্রস্তুতি

শুরুর নির্দেশনা দেয় প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উপসচিব শামীম আরা নাজনীন স্বাক্ষরিত এ সংক্রান্ত একটি নির্দেশনা জারি করা হয়।তবে, প্রস্তুতি নেয়ার পরও ক্লাস নেয়া সম্ভব না হলে প্রাথমিকের সব শ্রেণিতে অটোপাস বা শিক্ষার্থীদের সরাসরি উত্তীর্ণ করার লক্ষ্য রয়েছে বলে জানান প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব।

এদিকে, জেএসসি’র পরিবর্তে অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের স্ব স্ব স্কুলে মূল্যায়নের নির্দেশনা দেয়ার পর, অন্যান্য শ্রেণির ক্লাস-পরীক্ষার ব্যাপারেও চলতি সপ্তাহেই আন্তঃশিক্ষা বোর্ড চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাবে বলে জানা গেছে। প্রতিবছর নভেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকেই প্রাথমিক ও মাধ্যমিকের বার্ষিক পরীক্ষা শুরু হয়ে ডিসেম্বরের মাঝামাঝি ফলাফল ঘোষণা করা হয়।

কিন্তু করোনার থাবায় এ বছর শিক্ষাক্ষেত্রে সব পরিকল্পনা বদলে গেছে। গত মার্চ থেকে সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করার পর এখনো খোলার সিদ্ধান্ত নেয়া যায়নি। এরইমধ্যে পিইসি ও জেএসসি পরীক্ষা আনুষ্ঠানিকভাবে বাতিল করা হয়েছে।

আরও পড়ুন=মসজিদের পাশে কুরুচিপূর্ণ নাচের ঘটনায় আদালত থেকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে চিত্রনায়িকা মুনমুনকে। মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মো. মেহেদী হাসান মসজিদের সামনে নাচের কর্মকাণ্ডকে নাজায়েয ও বাংলাদেশের আইন বহির্ভূত উল্লেখ করে চিত্রনায়িকা মুনমুনকে লিগ্যাল নোটিশটি পাঠান।

নোটিশে উল্লেখ করা হয়েছে, লিগ্যাল নোটিশ পাওয়ার তিন দিনের মধ্যে মসজিদের সামনে নাচ-গান পরিবেশনের জন্য দুটি জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় মুনমুনকে ক্ষমা ও দুঃখ প্রকাশ করতে হবে। অন্যথায় তার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণের কথা জানানো হয় লিগ্যাল নোটিশে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *