শারীরিক দুর্বলতায় ভুগছেন অভিনেত্রী পপি

জাতীয়

জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত তারকা সাদিকা পারভীন পপি। দীর্ঘ ৫ মাস খুলনায় থাকার পর অবশেষে ঢাকায় ফিরেছেন তিনি। এসেই সুখবর দিলেন। জানালেন, এখন তিনি পুরোপুরি করোনা মুক্ত। বর্তমানে তিনি নগরীর ইস্কাটনের বাসায় বিশ্রামে আছেন। তবে শারীরিক দুর্বলতা এখনও

অনুভব করেছেন অভিনেত্রী।এর আগে, দু’দফায় করোনার রেজাল্ট নেগেটিভ আসে এই চিত্রনায়িকার।এ বিষয়ে পপি বলেন, ‘দীর্ঘ প্রায় পাঁচ মাস পর ঢাকার বাসায় ফিরলাম। বাসাজুড়ে ধুলাবালিতে ভর্তি। বিশ্রামের পাশাপাশি আপাতত ঘর গোছাচ্ছি। এর মধ্যে কাজের প্রস্তাব পেয়েছি। কিন্তু আপাতত কোনও কাজ করার ইচ্ছে নেই।’

শারীরিক অবস্থা প্রসঙ্গে এ নায়িকা বলেন, ‘করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর শুরুতে বেশ সমস্যা হয়েছে। খুব শ্বাসকষ্ট হতো। ভেবেছিলাম মরেই যাবো! একটা সময় ভয়ে ভেঙেও পড়েছিলাম। পরে সবার সাপোর্টে মনোবল শক্ত করে, চিকিৎসকের পরামর্শে চলেছি। দু’দফায় করোনা টেস্ট করা হয়েছিল। দু’বারই রেজাল্ট নেগেটিভ এসেছে। তবে করোনার ছাপ এখনও রয়ে গেছে। কারণ শরীর মাঝেমধ্যেই দুর্বল লাগছে।’

উল্লেখ্য, গত ২২ জুলাই পপির দেহে করোনা শনাক্ত হয়। তখন তিনি খুলনায় নিজ বাড়ি খালিশপুরে ছিলেন। লকডাউনের পূর্বে এলাকাতে গিয়ে আটকে যান নায়িকা। পরে লকডাউনের কারণে আর ফিরতে পারেননি। এ সময়ের মধ্যে নিজের সামর্থ্যের মধ্যে কয়েকবার খালিশপুর ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় অসচ্ছল মানুষদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করেন পপি। ধারণা করা হয় ওই সময়ই তিনি আক্রান্ত হন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *