১০ লাখ টাকা পাশে রেখে কথা বলছিলেন, ২ মিনিট পর দেখেন উদাও

জাতীয়

গোপালগঞ্জ সদর উপজেলা ডাকঘর থেকে ফিল্মি স্টাইলে এক গ্রাহকের ১০ লাখ টাকা চুরি হয়েছে। রোববার দুপুর ১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। পোস্ট অফিস থেকে টাকা উঠাতে এসে ১০ লাখ টাকা হারান গ্রাহক সুরেশ চন্দ্র বিশ্বাস।পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, রোববার দুপুর ১টার দিকে ডাকঘরে জমিয়ে রাখা ১০ লাখ টাকা তোলেন সুরেশ চন্দ্র। এরপর ডেস্কের পাশে টাকার ব্যাগ রেখে ডেস্ক কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলছিলেন। দুই মিনিট পর তাকিয়ে দেখেন টাকার ব্যাগ নেই।

ডাকঘরের সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, সুরেশ চন্দ্র ডেস্ক কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলার সময় মাস্ক পরিহিত এক ব্যক্তি টাকার ব্যাগ নিয়ে চলে যান।এ ঘটনায় সদর থানায় অভিযোগ দিয়েছেন সুরেশ চন্দ্র বিশ্বাস। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি-তদন্ত) মনিরুল ইসলাম।

ওসি বলেন, ভুক্তভোগী একটি অভিযোগ দিয়েছেন। ডাকঘরের সিসিটিভি ফুটেজ দেখে আমরা ধারণা করছি, চারজন মাস্ক পরিহিত পুরুষের সমন্বয়ে গঠিত সংঘবদ্ধ চক্র এ ঘটনা ঘটিয়েছে। ফুটেজ দেখে আগে ঘটে যাওয়া ঘটনাগুলোর সঙ্গে চোরদের শারীরিক গঠন মিলিয়ে দেখা হচ্ছে। তবে চুরির ব্যাপারে ডাকঘরের নিরাপত্তারক্ষীরা তথ্য দিতে পারলে খুব দ্রুত চোর চক্রকে ধরতে পারবে পুলিশ।

আরো পড়ুন…অগ্রণী ব্যাংকের বর্তমান ব্যবস্থাপক মো. জাকির হোসেন জানান, এভাবে ব্যাংকের টাকা কারো একার পক্ষে তুলে আত্মসাৎ করা সম্ভব নয়। কী পরিমাণ টাকা আত্মসাৎ হয়েছে তা জানতে অডিট চলছে। ৩১ আগস্টও ব্যাংকের একাউন্টে জমা করা টাকার গড়মিলের তথ্য ও অভিযোগ নিয়ে গ্রাহকরা এসেছেন। ৩০ আগস্ট পর্যন্ত এক কোটি ৩০ লাখ টাকা উদ্ধার করে গ্রাহকের একাউন্টে জমা করা সম্ভব হয়েছে। যার সবই বদরুল হাসান সনি দিয়েছেন বলে তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *